জৈন্তাপুরে আলেম হত্যাকারী ভণ্ডদের শাস্তির দাবীতে নেত্রকোনায় বিক্ষোভ

285

যাকারিয়া আকন্দ: সোমবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) রাতে সিলেটের জৈন্তাপুরে মাজারপূজারী ভন্ডদের অতর্কিত হামলায় ২ জন কওমী মাদরাসা ছাত্র নিহত হওয়ার প্রতিবাদে খেলাফত যুব আন্দোলন নেত্রকোনা জেলা শাখার প্রতিবাদী মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

বৃহস্পতিবার (১ মার্চ) জেলা সভাপতি গাজী আব্দুর রহিম এর নেতৃত্বে মানববন্ধনটি শহরের মিফতাহুল উলুম মাদরাসার সামনে অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় নেতাকর্মীরা মূহুর্মুহু শ্লোগানের মাধ্যমে হত্যার প্রতিবাদ এবং হত্যাকারীদের বিচার দাবী করেন। রাস্তায় থাকা পথচারীরাও হাত নেড়ে মানববন্ধনের প্রতি সমর্থন জ্ঞাপন করেন। অনেকে মানববন্ধনে অংশও নেন।

মানববন্ধনে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন মুফতি পিয়ার মাহমুদ, মাও: দেলোয়ার হোসেন, ক্বারি আব্দুর রকিব, মাওলানা মাজহারুল ইসলাম, মাও: আসাদুর রহমান আকন্দ, মুফতি জুবাইর চৌধুরী, মাও হাবিবুল্লাহ, মাও: মুস্তাকিম বিল্লাহ্, মাও: জাহিদুল ইসলাম ছালেহ্, প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, সিলেট শাহজালালের পূণ্যভুমি। এই মাটিতে ৩৬০ আউলিয়া সহ অসংখ্য আল্লাহর ওলীরা ঘুমিয়ে আছেন। সিলেটের হক্কানী আলেমরা সারা পৃথিবীতে সুনাম কুড়িয়েছেন। এখনও এ ধারা অব্যাহত আছে। সেই সিলেটের মাটিতে দাড়িয়ে কেউ হক্কানী আলেমদের রক্ত ঝরাবে তা মেনে নেওয়া হবে না। আমরা ইচ্ছা করলে ভন্ডদের সব আস্তানা ধূলায় মিশিয়ে দিতে পারি। কিন্তু আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। আইন হাতে তুলে নিতে চাই না। আমরা চাই প্রশাসন যথাযথ পদক্ষেপ নিক।

পাশাপাশি স্থায়ীভাবে ওদের ভন্ডামি বন্ধ করতে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি। প্রশাসন যদি বিচার করতে ব্যর্থ হয় তবে যে কোন পরিস্থিতির জন্য তাদেরকেই দায়বার বহন করতে হবে। সিলেট যদি ভন্ডদের কবরস্থানে পরিণত হয় তারও দায়বার প্রশাসনকে নিতে হবে।

মানববন্ধনে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মাওলানা আব্দুল হান্নান, হাফেজ আনোয়ার, হাফেজ মারজান হুসাইন, হাফেজ উমর ফারুক প্রমুখ।

মানববন্ধন শেষে জৈন্তায় শহীদদ্বয়ের রূহের মাগফেরাত এবং আহতদের সুস্থতা কামনা করে মোনাজাত করেন শাইখুল হাদিস মাওলানা তাবারকুল্লাহ।